Halima Parvin

আমার গ্রাম
হালিমা বিনতে খালেক ।

আমার গাঁয়ে আইস বন্ধু
দেখবে কত রূপ,
সবুজ শ্যামল গ্রাম টি আমার
দেখায় অপরূপ।

গ্রামটি আমার একেক বেলা
একেক রূপে সাজে,
শনশনিয়ে বাতাশ বহে
যেন বাঁশি বাজে।

রূপের রানী গ্রামটি আমার
সেরা সবার চোখে,
গ্রামের ছবি পাঠিয়ে দেব
এঁকে রাখিস বুকে।

এই গাঁয়ের শান্ত বাতাস
বাঁচায় সবার প্রান,
বনের কদম সুবাস ছড়ায়
মিষ্টি তাহার ঘ্রান।

লতা পাতা তরুলতায়
গ্রামটি আমার ঘেরা,
মাঠে সোনার ফসল দোলে
সবার মন কারা।

উত্তরেতে বইছে নদী
কাক চক্ষু জল,
চাঁদের আলো হেথায় পরে
করে ঝলমল।

দক্ষিনেতে মাঠ আছে ভাই
ভরা,সবুজ ধানের চারা,
দোলা দিয়ে করছে বাতাস
যেন পাগল পারা।

সবুজ বনে ভরে আছে
নানা ফলের গাছ,
নদী-নালা, পুকুর ভরা
নানান প্রজাতির মাছ।

আমার গাঁয়ে আইস বন্ধু
খাইতে ভাজা কই,
চিড়া, মুড়ি, করবি কলা
গামছা পাতা দই।

আম,কাঁঠালের বনে গিয়ে
খেলবো দুজন খেলা,
পুকুর জলে ভেসে বেড়াব
ভাসিয়ে,কলাগাছের ভেলা।

আমার গাঁয়ে আইস বন্ধু
রইলো নিমন্ত্রণ,
পড়ার পাঠ চুকিয়ে নিয়ে
খেলায় দেব মন।

পথের ধারে সবুজ ঝোপে
ফুটে নানান ফুল,
তাহার শোভা দেখে সবাই
হয়ে মশগুল।

সেই ফুলেরই মালা গেঁথে
দিব তোমার গলে,
দুজন মিলে কাটবো সাঁতার
শান্ত পুকুরের জলে।

সন্ধে হলে ঘরে ফিরে
খাবো গরম ভাত,
আমের রস আর দুধে ভাতে
ভরে যাবে পাত।

আমার গাঁয়ে আইস বন্ধু
সুখের ছোঁয়া পেতে,
শীতল পাটি বিছিয়ে দেব
ক্লান্তি শেষে শুতে।।

1 thought on “Halima Parvin”

  1. Ruby Ghosh Dastidar

    আহা,চমৎকার…..তোমার লে খার মাধ্যমে গ্রামের সুন্দর ছবি এঁকে দিলে… তোমার অপূর্ব শব্দ চয়ন…..

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *